রবিবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৭:৪৭ অপরাহ্ন

অবশেষে বন্ধ হলো কবরের উপর মার্কেট নির্মাণ

নিজস্ব প্রতিবেদক  / ৪৪১ জন পড়েছেন
সোমবার, ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০২০

কুতুবপুর শাহীবাজার কবরস্থানে কবরের উপর মার্কেট নির্মাণকে কেন্দ্র করে উত্তেজনার অবশেষে অবসান হয়েছে। বাধ্য হলো মার্কেট নির্মাণে জড়িত কমিটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পিছু হটতে। শাহ নিজাম ও মনিরুল আলম সেন্টুর হস্তক্ষেপে মসজিদের নিচ তলায় আর মার্কেট হচ্ছেনা। এলাকাবাসীর প্রতিবাদ ও বিক্ষোভের মুখে তারা পিছু হটতে বাধ্য হন।তবে পুরো অংশটিতে থাকছে মসজিদ।
গত শুক্রবার বাদ আসর সদর উপজেলার ফতুল্লার কুতুবপুর ইউনিয়ন এর শাহীবাজার কবরস্থানে মার্কেট হওয়ার বন্ধের দাবীতে এলাকাবাসী মানববন্ধনে অংশগ্রহণের মাধ্যমে বন্ধ হল কবরস্থান মার্কেট।

শাহীমহল্লা কবরস্থানে মার্কেট নির্মাণ প্রতিরোধ কমিটির আহ্বায়ক হাজী মোঃ মির হোসেন মিরু বরেছেন, কবরস্থান কমিটি সভাপতি আলাউদ্দিন হাওলাদার মেম্বার ও সেক্রেটারি হুমায়ন কবির এর নেতৃত্বে প্রয়া বিশ হাজার কবরের উপর মার্কেট ও মসজিদ নির্মাণ করছে। এই অত্রএলাকার মানুষের শেষ আবাসস্থল কবরস্থান এর কবরের উপর মসজিদের মার্কেট নির্মাণের বন্ধের দাবীতে প্রতিবাদ করে এলাকাবাসী মানববন্ধন করেছে। কবরের উপর যেহেতুক মসজিদ নির্মাণ হচ্ছে।মসজিদের নিচে মার্কেটেরর জন্য দোকান বরাদ্দ নয়। এ নিয়ে এলাকাবাসী দাবী মার্কেটের পরিবর্তনে মৃতদেহের জানাজার স্থান হবে এটাই এলাকাবাসীর দাবী আজ সফল হয়েছে। এবং
কুতুবপুর ইউপি চেয়ারম্যান মনিরুল আলম সেন্টু ও মহানগ আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক শাহ নিজামের হস্তক্ষেপে বন্ধ হল বহুল মার্কেট।

এবিষয়ে কুতুবপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মনিরুল আলম সেন্টু বলেছেন, এটা এলাকাবাসীর দাবী করা হয়েছিল যে মসজিদের নিচে কোন দোকান পাট করা যাবেনা। তাদের এ দাবী সমন্বয় করা হয়েছে যে এখানে মসজিদ হবে কোন দোকানপাট হবেনা। তিনি আরও বলেন মসজিদের নিচে মৃতব্যক্তিদের জানাজার স্থান হবে আর ঈদের সময় যদি মুসল্লিদের সংখ্যা বেশী হয় তাহলে এখানে নামাজ পরবে।

শাহ নিজাম বলেন, ঐখানে আমাদের লোকাল লিডার ও চেয়ারম্যান আছে আমার দৃষ্টিকোণ যেহেতুক পাবলিক সেন্টিমেন্টাল তাই তাদের দায়িত্ব দিয়েছে সমাধানের জন্য। আগামী শনিবারের মধ্যে কবরস্থান কমিটি ও মার্কেটের বিরুদ্ধে যারা তাদের দুই পক্ষকে নিয়ে বসার নির্দেশ দিয়েছি। ইসলামীক দৃষ্টিকোণ থেকে যদি মার্কেট রাখা যায় তাহলে থাকবে নয়তবা এলাকাবাসী যদি মনে করেন এখানে মার্কেট থাকবেনা তাহলে সেটাই বহাল থাকবে।

আর্কাইভ


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ বিভাগের আরও খবর