শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ০১:৩৫ অপরাহ্ন

তল্লা সবুজবাগে মালামাল লুটের অভিযোগ 

ফতুল্লা প্রতিনিধি: / ৯ জন পড়েছেন
মঙ্গলবার, ১৭ নভেম্বর, ২০২০

তল্লা সবুজবাগ এলাকায় এক বাড়িতে ঢুকে নগদ টাকা, ফ্রিজ সহ বিভিন্ন মালামাল লুটে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে। এ বিষয়ে ফতুল্লা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী পরিবারের নারী সদস্য শাহানাজ বেগম। খানপুর ব্যাংক কলোনী এলাকার নবিসহ অজ্ঞাত ১০/১২ জনের নামে এ অভিযোগ করা হয় বলে জানা গেছে। তবে পুলিশ ও স্থানীয় কাউন্সিলর বলছে, ঐ মহিলার বাড়ির সকল জিনিসপত্র ফিরিয়ে দেয়া হয়েছে।

জানা যায়, মঙ্গলবার রাতে মাদক নির্মূলের নামে এক মাদক ব্যবসায়ীকে খুঁজতে গিয়ে ভুক্তভোগী নারীর বাড়িতে নবীসহ অজ্ঞাত ১০/১২ জন ব্যক্তি ঐ নারীর বাড়িতে প্রবেশ করে। পরে ঐ মাদক ব্যবসায়ীকে না পেয়ে ভুক্তভোগী নারীর ঘর থেকে ফ্রিজ, জালি ফ্যান, চেয়ার, তোষক, বালিশ, ওয়ারড্রপ ও নগদ ১৬ হাজার টাকা লুট করে বলে অভিযোগে উল্লেখ করা হয়।

লিখিত অভিযোগে ভুক্তভোগী শাহানাজ বেগম উল্লেখ করেন, মঙ্গলবার মধ্যরাতে খানপুর ব্যাংক কলোনী এলাকার নবিসহ ১০/১২ জন ব্যক্তি তার ভাড়া বাড়িতে প্রবেশ করে শাহিন নামের এক ব্যক্তিকে খুঁজতে থাকে। পুরো বাড়ি খুঁজাখুঁজি করার পর শাহিন নামের ঐ ব্যক্তিকে না পেয়ে ভুক্তভোগী নারীর বাসায় থাকা একটি ফ্রিজ, ২টি জালি ফ্যান, ২টি প্লাষ্টিকের চেয়ার, ১টি তোষক, ২টি বালিশ ও  ১৬ হাজার টাকাসহ ১টি ওয়ারড্রপ তুলে নিয়ে যায়। এসময় আমি (ভুক্তভোগী নারী) বিবাদীদেরকে শাহিন নামে কাউকে চিনি না বা জানিনা এমনকি এ নামের কোনো ব্যক্তি আমার বাসায় কখনই আসে নাই বলা সত্ত্বেও বিবাদীরা উল্লেখিত জিনিসপত্র ও টাকা লুট করে নিয়ে যায়। এতে আমি বাধা দিলে তারা আমাকে মারধর করার জন্য তেড়ে আসে এবং আমাকে বিভিন্ন প্রকাম ভয়-ভীতি ও হুমকি প্রদান করে। তাই আমি নিরাপত্তাহীণতায় ভুগছি এবং কোনো উপায় না পেয়ে ফতুল্লা মডেল এসে অভিযোগ দায়ের করেছি।

এদিকে, মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা বলেন, গতকাল রাতে একটি অভিযোগ দায়ের হয়েছে। আমি ঘটনাস্থলে গিয়ে লুটপাটের কোনো আলামত পাই নি। স্থানীয় কাউন্সিলরের সাথে কথা বলেছি, তিনি জানিয়েছেন ফ্রিজ ফেরত দেয়া হয়েছে।

স্থানীয় কাউন্সিলর শওকত হাশেম শকু বলেন, যে ফ্রিজটির কথা বলা হয়েছে সে ফ্রিজটি নষ্ট ছিলো, তারপরও তার ফ্রিজ তাকে ফেরত দিয়ে দিয়েছে। আপনারা জানেন, আজ একই এলাকায় বেশ কয়েকটি বাড়িতে মাদক পাওয়া গেছে এবং সে বাড়ি গুলোকে পুলিশের উপস্থিতিতে গুড়িয়ে দেয়া হয়েছে।

এই বাড়িতে মাদক পাওয়া গিয়েছিলো কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, না এ বাড়িতে পাওয়া যায় নি।

আর্কাইভ


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ বিভাগের আরও খবর